কেরলে রহস্যজনক ভাবে প্রাণ গেল সাগরপাড়ার শ্রমিকের

নিজস্ব সংবাদদাতা, জলঙ্গিঃ কেরল থেকে আর বাড়ি ফেরা হল না সাগরপাড়ার সুব্রত হালদারের। পরিযায়ী শ্রমিকের কাজে গিয়েছিলেন কেরলে। সেখানে গিয়ে রহস্যজনকভাবে মৃত্যু হল বছর ৩৫-এর এই শ্রমিকের। পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, সাগরপাড়ার নরসিংহপুরের বাসিন্দা সুব্রত হালদার প্রায় ১৫ বছর ধরে কেরলে কাজ করতেন। ২০১৫ সালে শেষ বারের মতো সে সাগরপাড়ার বাড়িতে এসেছিল। জানুয়ারী মাসে বাড়ি ফেরার কথা ছিল।

গত সোমবার পরিবারের সদস্যদের সাথে তাঁর কথা হয়। মঙ্গলবার সকাল থেকে সুব্রতর সাথে যোগাযোগ করতে পারেনি পরিবারের লোকজন। পরে পুলিশের কাছ থেকে খবর আসে তাদের ছেলের মৃত্যু হয়েছে। এই ঘটনায় সুব্রতকে খুনের অভিযোগ তুলছে পরিবারের লোকজন। মৃতের বাবা সূর্যকান্ত হালদার জানিয়েছেন, তাঁর ছেলে সুস্থ স্বাভাবিক ছিল। কেউ চক্রান্ত করে খুন করেছে তাঁকে।

কীভাবে ছেলের মৃত্যু হল তা বুঝে উঠতে পারছে না পরিবারের লোকজন। পরিযায়ী শ্রমিকের মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে পরিবার জুড়ে।