ধানে ‘ধলতা’ ফারাক্কায় ! কিষাণ মান্ডিতে বিক্ষোভ কৃষকদের

নিজস্ব সংবাদদাতা, ফরাক্কাঃ রাজ্য সরকারের উদ্যোগে সহায়ক মূল্যে ধান কেনার কাজ চলছে বিভিন্ন কিষাণ মান্ডিতে। এক কুইন্ট্যাল ধানের দাম ২২০৩ টাকা। কিন্তু ফরাক্কার কিষাণ মান্ডিতে কৃষকদের একই দামে অতিরিক্ত ধান বিক্রি করতে চাপ দেওয়া হচ্ছে। এই অভিযোগ তুলে কিষাণ মান্ডিতে বিক্ষোভ দেখালেন কৃষকরা।

মিল মালিক ও সরকারি আধিকারিকদের বিরুদ্ধেও অভিযোগের আঙুল তোলেন তাঁরা। ধানের গুণগত মান নিয়ে প্রশ্ন তুলে এই অতিরিক্ত ধান বিক্রির জন্য চাপ দেওয়া  হচ্ছে বলে অভিযোগ। কিন্তু একই দামে অতিরিক্ত ধান বিক্রি না করার সিদ্ধান্তে অনড় থাকেন কৃষকরা। তার প্রতিবাদে ওই কিষাণ মান্ডিতে দীর্ঘক্ষণ বিক্ষোভ দেখান কৃষকরা।

বাহাদুরপুরের কৃষক নওসাদ আলী জানান, ‘আমরা এখানে ধান বিক্রি করতে এসেছিলাম। কিন্তু এখানে এসে শুনলাম প্রতি কুইন্টালে আমাদের ৫ কেজি করে পাট্টা দিতে হবে। সেই কারণে আমরা কেউই ধান বিক্রি করিনি।’

ফরাক্কা ব্লক তৃণমূল কিষাণ সেলের সভাপতি মোস্তাকিন হোসেন জানান, ‘মুখ্যমন্ত্রী আমাদের সমস্ত চাষিদের সুযোগ করে দিয়েছে। কিষাণ মাণ্ডি করে অনেক সুবিধা হয়েছে সবার। কিন্তু এখানে মিল মালিকরা অতিরিক্ত পাট্টা নিয়ে সবারির মন ভেঙে দিচ্ছে।’

ফরাক্কা কিষাণ মান্ডির পারচেস অফিসার অজয় কুমার নাথ এই বিষয়ে জানান, ‘এই ঘটনাটি আমি জানতে পারলাম। কৃষকেরা এই অভিযোগটা আমাদের জানাল। কৃষকদের কাছ থেকে অতিরিক্ত বাটা নেওয়া হচ্ছে এই অভিযোগে বিক্ষোভ দেখান তাঁরা। এই বিষয়টি আমি নিজের হাতে খতিয়ে দেখছি।’ এই ঘটনার জেরে তীব্র উত্তেজনা ছড়ায় এলাকায়। বিক্ষোভের জেরে এদিন বন্ধ হয়ে যায় ধান বিক্রি।