‘ভারতের পার্লামেন্টের নিরাপত্তা নিশ্ছিদ্র না শতছিদ্র’ – তোপ অধীরের

মধ্যবঙ্গ নিউজ ডেস্কঃ বুধবার বেলায় ভারতের সংসদ ভবনে তান্ডব চালায় এক ব্যক্তি। হঠাৎই পার্লামেন্টের ভিজিটারস্ গ্যালারি থেকে লাফিয়ে এসে পড়েন সাংসদদের মাঝে। সাথে সাথে সেই ছবি ছড়িয়ে পড়তেই পার্লামেন্ট ভবনের নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। যদিও সেদিন কোনও দুর্ঘটনা ঘটেনি তবে ঘটতেই পারত। রঙিন স্প্রে না থেকে ওতে বিষাক্ত গ্যাস বা বোমা থাকতে পারত। নতুন পার্লামেন্টে নেয় নিরাপত্তা, অভিযোগ প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতির। এই নিয়ে শুরু হয়েছে রাজনৈতিক বিতর্ক। চলতি বছরের ২৮ মে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এই নতুন সংসদ ভবন উদ্বোধন করেন। এই সংসদ ভবনে তান্ডবের ঘটনায় সংসদ ভবনের নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন কংগ্রেসের লোকসভার সাংসদ অধীর রঞ্জন চৌধুরী।

পার্লামেন্টে তান্ডবের দিন সেখানে উপস্থিত ছিলেন কংগ্রেস সাংসদ অধীর চৌধুরী। শনিবার বহরমপুর ফিরে, সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে, দেশের প্রধানমন্ত্রীকে উদ্দেশ্য করে বলেন, “মোদী তোমার যে বর্ম, তা নিশ্ছিদ্র নয় শতছিদ্র।” আরও জানান, সেদিন পার্লামেন্টে হামলাকারীদের আরও পরিকল্পনা ছিল। তবে যাই হোক একটা কথা প্রমাণ হল যে, মোদী পার্লামেন্টকে নিরাপত্তা দিতে পারেনি। যে একটা পার্লামেন্টকে নিরাপত্তা দিতে পারে না, সে একটা দেশকে কীভাবে নিরাপত্তা দেবে? এই প্রশ্ন এখন উঠে গেছে। আধুনিক ভারতবর্ষের আধুনিক পার্লামেন্টে এই ঘটনা লজ্জার।

তান্ডবকারীদের প্রসঙ্গে অধীর বলেন, “যারা ঘটনাটা ঘটাল তাঁরা ভয়ঙ্কর আতঙ্কবাদী নয়। তাঁরা টেররিস্ট না, আমি তাঁদেরকে প্রটেস্টার বলতে চাই। তাঁরা প্রতিবাদী। এখন তাঁদেরকে টেরারিস্ট বলে ইউএপিএ লাগিয়ে দেওয়া হয়েছে, ঠিক আছে। আইন ব্যবস্থা নেবে। কিন্তু তাঁরা যদি প্রকৃত টেররিস্ট হতো তাহলে সেদিন কী হতো? তাঁরা সব করে দেখিয়ে দিল এবং তাঁরা টেররিস্ট নয় এটাও তাঁরা দেখিয়ে দিল।