DYFI এর SP অফিস অভিযান ঘিরে উত্তাল বহরমপুরের রাজপথ ।

Madhyabanga News :অক্টোবর মাস জুড়ে জেলার বিভিন্ন প্রান্তে একাধিক কর্মসূচি নিয়েছে বাম সংগঠনগুলি। মাসের শেষদিন ৩১ অক্টোবর DYFI এর ডাকে সোমবার জেলা সদর বহরমপুরে ছিল SP অফিস অভিযান’ কর্মসূচি।লালগোলায় চাকরি প্রার্থী আব্দুর রহমানের মৃত্যু আসলে একটি প্রাতিষ্ঠানিক হত্যা, এই হত্যার সাথে জড়িত সকলকে গ্রেপ্তার করা ও রাজ্যুজরে শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতিতে অভিযুক্তদের শাস্তির দাবিতে এবং জেলা জুড়ে মিথ্যা মামলায় বাম কর্মী সমর্থকদের ফাঁসানোর প্রতিবাদে বহরমপুরে এস. পি অফিস অভিযানে নামে DYFI মুর্শিদাবাদ জেলা কমিটি।

ইতিপূর্বে গত শনিবার ‘থানা চলো’ অভিযানকে ঘিরে লালগোলাতে ধুন্ধুমার পরিস্থিতি তৈরি হয়। আজও বহরমপুরে DYFI এর এই মিছিলকে পুলিশি বাধার মুখে পড়তে হয়। এই রাজ্যে গণতান্ত্রিক আন্দোলনকে বারংবার পুলিশি বাধার সামনে পড়তে হচ্ছে। তাই বহরমপুর টেক্সটাইল মোড়েই রাস্তার ওপরে অবস্থান বিক্ষোভ শুরু করেন DYFI নেতা কর্মীরা।

বহরমপুরে DYFI নেতা কর্মীরা জেলা পুলিশ সুপারের কাছে ডেপুটেশন জমা দেওয়ার জন্য মিছিল করে S.P অফিসের দিকে এগোলে পুলিশ গার্ডরেল ও বাঁশ দিয়ে ব্যারিকেড করে সেই মিছিলে বাধা দেয়। সেখানে মিছিল প্রতিহত করার জন্য উপস্থিত ছিল জল কামানও। ব্যারিকেড অতিক্রম করে S.P অফিসের দিকে যেতে উদ্যত হলে বাধাপ্রাপ্ত হয় বাম কর্মীরা। পুলিশের সাথে হালকা ধস্তধস্তিও হয়।

এর পর শান্তিপূর্নভাবে বহরমপুর টেক্সটাইল মোড়ে অবস্থান বিক্ষোভে বসে তারা। সেখানে প্রায় ১ ঘণ্টা চলে তাদের অবস্থান। অবস্থানে বক্তব্য রাখেন DYFI এর রাজ্য সভাপতি ধ্রুবজ্যোতি সাহা, DYFI মুশিদাবাদ জেলার সম্পাদক সন্দীপন দাস ও অন্যান্য রাজ্য ও জেলার নেতৃত্বরা। আব্দুর রহমানের ইনসাফের দাবিতে এদিন পথে নামে DYFI। আব্দুর রহমানের লেখা সুইসাইড নোটে উল্লেখ করা ব্যাক্তি ও ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট নিয়ে তদন্ত হলে শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতির মূল অভিযুক্তরা ধরা পড়বে – এই দাবি নিয়ে সোচ্চার হয় বামেরা।

গত শনিবার লালগোলার SFI ও DYFI এর ‘থানা চলো’ অভিযান তারপর আজকের এই অভিযান ঘিরে রণক্ষেত্রের চেহারা নিয়েছিল বহরমপুরের রাজপথ। বামকর্মীরা রাস্তায় বসে একঘন্টা অবস্থান করে । নিজেদের দাবি নিয়ে অনড় ছিল তারা। এই অবস্থায় জেলার পুলিশ সুপার ডেপুটেশন গ্রহন করতে সম্মত হলে অবস্থান উঠে যায়।