জেলা জুড়ে গড়াল না বাসের চাকা, নাজেহাল নিত্যযাত্রীরা

মধ্যবঙ্গ নিউজ ডেস্কঃ জেলা জুড়ে গড়াল না বাসের চাকা। সপ্তাহের প্রথম দিনেই কার্যত এই ছবিই দেখা গেল মুর্শিদাবাদে। বাসস্ট্যান্ডেই পার্কিং করা থাকল বাস। স্ট্যান্ডে বসেই চলল দেদার লুডো খেলা। খেলছেন বাসচালক থেকে খালাসী সকলেই। এমন ছবিই দেখা গেল জঙ্গিপুর বাসস্ট্যান্ড এলাকায়। জেলা সদর বহরমপুর থেকে জঙ্গিপুর, সালার থেকে কান্দি ছবিটা সব জায়গায় একই রকম। সোমবার বাস ধর্মঘটের ডাক দিয়েছিল বেসরকারি বাস মালিক পক্ষ। মুর্শিদাবাদ বাস মালিক অ্যাসোসিয়েশন লিখিতভাবে একথা জানিয়েছিল শনিবার। সোমবার সকাল ছ’টা থেকে মঙ্গলবার সকাল ছ’টা পর্যন্ত জেলায় বাসের চাকা গড়াবে না বলে জানিয়েছেন তাঁরা। দীর্ঘদিন ধরে বাড়েনি বাসের ভাড়া। তেলের দামও বেড়েছে লাফিয়ে। এছাড়াও আরও অন্যান্য দাবিদাওয়া নিয়ে এদিন বাস পরিষেবা বন্ধ রাখার কথা জানান সংগঠনের সম্পাদক তপন অধিকারী। তিনি জানান, বাস চালানোর কোনও পরিবেশ নেই। বেআইনিভাবে বাসরুটে বেড়েছে অটো, টোটোর দৌরাত্ম।

মুর্শিদাবাদের নিত্যযাত্রীদের ভরসা এই সমস্ত বাসগুলি। এদিন সরকারি দপ্তর বন্ধ থাকলেও  সাধারণ নিত্যযাত্রীদের নাকাল হতে হয়েছে বাস না চলায়। উপায়ন্তর না পেয়ে যারা অন্য গাড়িতে সদরে এসেছেন তাদের গুণতে হয়েছে অধিক কড়ি। সাগরপাড়া থেকে বহরমপুর আসতে যেখানে চার্ট অনুযায়ী ৪৫ টাকা ভাড়া দিতে হয়, সেখানে আজ বন্ধের জন্য সেই ভাড়া বেড়ে হয়েছে ১০০ টাকা। ফলে নাকানিচোবানি খেতে হচ্ছে যাত্রীদের। কবে কাটবে বাস দুর্ভোগের এই ছবি? সেদিকেই তাকিয়ে বাস মালিক থেকে যাত্রী সকলেই।