রাতের বেলায় ফাঁকা বাড়িতে অতিথি হল চোর।

মধ্যবঙ্গ নিউজ ডেস্কঃ সেকি কান্ড! ছড়িয়ে রয়েছে কাগজপত্র, কোথাও উল্টানো রয়েছে টেবিল। বাড়িতো না, যেন সালমান খানের অ্যাকশন সেট। তছনচ হয়ে আছে ঘরের সমস্ত আসবাবপত্র। সকাল সকাল বাড়ির পরিচারিকা কাজ করতে এসে তার চক্ষু চরক গাছে। ছড়িয়ে ছিটিয়ে পরে আছে সবকিছুই। সাথে সাথে খবর দেওয়া হয় বাড়ির মালিক ডঃ আশিস দত্ত কে। ফোন পেয়েই হার্টফেল করার মতন অবস্থা ডাক্তারবাবু।

শনিবার ভোর রাতে, জঙ্গিপুর শহরের প্রানকেন্দ্রে দুঃসাহসিক চুরির ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়াল এলাকায়। পরিবারের সদস্যদের অনুস্পস্থিতিতে চুরির ঘটনা ঘটেছে চিকিৎসকের বাড়িতে। জানা গিয়েছে জঙ্গিপুর পৌরসভার ১৫ নম্বর ওয়ার্ডের হরিদাসনগর এলাকার বাসিন্দা চিকিৎসক কলকাতায় থাকেন, তাঁর বাবা ও মাও সেখানে রয়েছে। বাড়িতে ভাড়াটিয়াও ছিলেন না। খবর দেওয়া হয় রঘুনাথগঞ্জ থানায়। পুলিশ ঘটনাস্থলে আসে। চিকিৎসকের বাড়ির দোতলা ও নিচের ঘরের আলমারি খোলা অবস্থায় দেখা যায়। মেঝেতে ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে জিনিস পত্র। কিছু গহনার বাক্সও খালি অবস্থায় পরে থাকতে দেখা যায়।

কিভাবে চুরির ঘটনা ঘটল তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। বেশকিছু মুল্যবান জিনিসপত্র চুরি হয়েছে। তার মধ্যে আছে টিভি, মাইক্রওভেন। ভাঙা সমস্ত আলমারির লকার। প্রায় অনেক টাকারই জিনিসপত্র নিয়ে চম্পট দেয় চোরের দল। জানা গিয়েছে ঘটনাস্থলের পাশেই রয়েছে জঙ্গিপুর কোর্ট ও প্রশাসনিক আধিকারিককের ভবন। শহরের মধ্যে এই চুরির ঘটনায় আতঙ্কিত স্থানীয়রা।