প্রধান নির্বাচনের দিনেও তৃণমূলের গোষ্ঠীকোন্দলে খুন খড়গ্রামে!

মধ্যবঙ্গ নিউজ ডেস্কঃ প্রধান নির্বাচনের দিনেও খুন খড়গ্রামে। এবার খুন পঞ্চায়েত সদস্যের ছেলে। খুন পঞ্চায়েতে বোর্ড গঠনের দিনে। খুন মুর্শিদাবাদে। তৃণমূলের বিরুদ্ধেই খুনের অভিযোগ তৃণমূলের। মুর্শিদাবাদের খড়গ্রাম থানার সাদল গ্রাম পঞ্চায়েতের রুহিগ্রামে খুন হলেন তৃণমূল কর্মী হুমায়ুন কবির খামারু। ওই যুবকের মা সানুয়ারা খাতুন কংগ্রেসের প্রতীকে সাদল গ্রাম পঞ্চায়েতে জয়ী হন। তিনি তৃণমূলে যোগ দেন ।

এদিন ছিল সাদল গ্রাম পঞ্চায়েতে প্রধান নির্বাচন। নির্বাচনে ভোটাভুটিতে জয়ী হন তৃণমূলের রাজবানু খাতুন। তৃণমূল সূত্রের খবর, প্রধান নির্বাচন ঘিরে তৃণমূলের দুই পক্ষের মধ্যে হয় ভোটাভুটি। প্রধান নির্বাচনের পর গ্রামে পরাজিত পক্ষের উপর হামলা হয় বলে অভিযোগ।

মৃতের ভাবি রুবিনা বিবির অভিযোগ, আক্রান্ত হন হুমায়ুন কবির খামারু ও আরও তিনজন। মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসার পর চিকিৎসকরা তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। পঞ্চায়েতে তৃণমূলের দুই পক্ষের মধ্যে প্রধান পদ নিয়ে ছিল বিবাদ। তার জেরেই খুন খড়গ্রামে।