জীবনের পদত্যাগের দাবি, সই চাইল সিপিএম

নিজস্ব সংবাদদাতা, বড়ঞাঃ বেহালা পশ্চিমের পর একেবারে কান্দির বড়ঞা, ফের বিধায়কের পদত্যাগের দাবিতে পথে নামল সিপিএম(আই)। শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি কান্ডে জড়িত বিধায়ক পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের পদত্যাগের দাবিতে পয়লা মে বেহালা পশ্চিম এলাকায় গণভোটের আয়োজন করেছিল সিপিএমের যুব সংগঠন ডিওয়াইএফ আই। সেই এক পথে হেঁটে বুধবার বড়ঞায় বিধায়ক ‘সরানোর’ দাবিতে সাধারণ মানুষের সাক্ষর সংগ্রহ অভিযানে নামেন স্থানীয় সিপিএম নেতৃত্ব। বুধবার সকালে আন্দী বাসস্ট্যান্ডে জমায়েত করে মিছিল করেন তাঁরা। বিধায়কের গ্রামে তাঁর পদত্যাগ চেয়ে এই মিছিলের নেতৃত্ব দেন ডিওয়াইএফআই রাজ্য সভাপতি ধ্রুবজ্যোতি সাহা।এদিন সিপিএম নেতা ধ্রুবজ্যোতি সাহা  বলেন, ” সাধারণ মানুষের স্বাক্ষর  সংগ্রহে রাখার মতো জায়গা দিতে দিতে একসময় আমরা হাঁফিয়ে উঠেছিলাম। মানুষ স্বতস্ফূর্তভাবে চাইছেন হাজতবাস করা বিধায়ককে এখুনি সরিয়ে দিতে।”

চলতি বছর এপ্রিলের ১৭ তারিখ রাজ‍্যের স্কুলে ভুয়ো শিক্ষক নিয়োগ কান্ডে চাকরি প্রার্থীদের কাছে কোটি কোটি টাকা নেওয়ার অভিযোগে সিবিআই গ্রেফতার করে জীবনকৃষ্ণ সাহাকে। আদালতের নির্দেশে বড়ঞার বিধায়ক এখন জেল হেফাজতে আছেন। সিপিএম নেতৃত্বের দাবি “এলাকার মানুষ একজন চোরকে ভোটে জিতিয়ে এখন হাত কামড়াচ্ছে। তাই বিধায়কের পদত‍্যাগ চেয়ে পথে নেমেছেন তাঁরা।”

তবে পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের দলীয় পদ কিংবা মন্ত্রীত্ব গেলেও মুর্শিদাবাদ তৃণমূলের জেলা কমিটিতে আমন্ত্রিত সদস্যদের তালিকায় এখনও উজ্জ্বল উপস্থিতি বিধায়ক জীবনকৃষ্ণ সাহার। যা নিয়ে অসন্তুষ্ট দলেরই একাংশ। এদিন বিধায়কের পদত‍্যাগ দাবি তুলে পরোক্ষে বিধায়ককে দলহীন করবার দাবিও তুললেন বাম কর্মীরা । যদিও তাকে আমল দিতে নারাজ ঘাসফুল শিবির।