চুঁয়াপুর রেলব্রিজে ছুটছে গাড়ি !

দেবনীল সরকারঃ অবশেষে স্বস্তি। গাড়ি ছুটছে চুঁয়াপুর রেলব্রিজের উপর দিয়ে।   প্রায় ৮  বছরেরও বেশি সময় ধরে  এই ফ্লাইওভারের নির্মাণকাজ  দেখছিলেন   শহরের মানুষ । বহরমপুর স্টেশন সংলগ্ন চুঁয়াপুর রেলগেট শহরের একটি জনব্যস্ত মোড় । এই রেলগেটের যানজটে তিতিবিরক্ত হয়ে উঠেছিলেন শহরের মানুষ । সেই সমস্যার সুরাহার জন্যই রেলগেটের ওপর একটি ফ্লাইওভার নির্মাণের ভার নেয় ভারতীয় রেল  । ২০১৪ সালে হয় শিলান্যাস।  কিন্তু সেই কাজ শুরু হয়ে বন্ধ পরে থাকে বেশ কয়েকদিন । তারপর এই বছর সেই ব্রিজটি প্রায় সম্পূর্ণ হতে দেখা যায় । প্রায় ৯  বছর ধরে তিলে তিলে তৈরি হতে হয়েছে এই  ব্রিজ।মাঝে মাঝেই থমকে গিয়েছে কাজ।  স্থানীয়দের মুখে শোনা, চলতি বছরের ১৫ই আগস্ট উদ্বোধন হওয়ার কথা ছিল ব্রিজটি। কিন্তু তা হয়নি । ব্রিজের ওপর পিচ করার সামগ্রী, রোড রোলার ইত্যাদি ছড়িয়ে ছিটিয়ে ছিল।

রেলব্রিজে চলছে গাড়ি

পুজোর সময়ও এই ব্রিজ ব্যবহার করতে দেওয়া হয়নি প্রশাসন তরফে। তবে পুজোর পর হঠাৎই এই ফ্লাইওভার দিয়ে চলতে শুরু করেছে টোটো, বাইক, চারচাকা গাড়ি, লরি। যা দেখে রীতিমতো অবাক হয়েছেন এলাকার মানুষ। তারা বলেন, কবে থেকে চালু হল এই ব্রিজ। উদ্বোধনই বা কবে হল! কে করলেন?

উড়ালপুলে নেই কোনও নিরাপত্তাবিধি সংক্রান্ত সাইনবোর্ড, নেই স্পিড ব্রেকার, নেই কোনও ট্রাফিক পুলিশ। নিয়মকানুনের বালাই নেই । দাপিয়ে হেলমেট ছাড়া চলছে বাইক ।  যাচ্ছে মাল বোঝাই ট্রাকও।  স্থানীয় বাসিন্দা ভবেশ দাস  বলেছেন, “ একে তো এতদিন ধরে কাজ হচ্ছে, সারাক্ষণ জল কাদা হয়ে থাকে এই রাস্তা। গত ১০ বছর ধরে এই ঝামেলা সহ্য করলাম। এখন হঠাৎ কোনো নোটিশ ছাড়া গাড়িঘোড়া চালতে শুরু হয়ে গেল ” ।

স্থানীয় বাসিন্দা স্বপন সরকারের কথায়, ব্রিজ ব্যবহার করতে পেরে সবাই খুশি। জানজট থেকে তো মুক্তি হয়েছে।